[english_date], [bangla_day], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]
সর্বশেষ সংবাদ



শারদোৎসবে ঘর সাজাবেন যেভাবে


প্রকাশিত: October 12, 2015 , 9:20 pm | বিভাগ: ইয়াং স্টাইল


লাইভ প্রতিবেদক: এসে গেল শারদীয় দুর্গাপূজা। জামাকাপড় নিয়ে ভাবনা তো আছেই। সেইসাথে পরম উৎসবের দিনে ঘর-দোয়ার সাজানোর বিষয়টিও কম গরুত্বপূর্ণ নয়।

কারণ অতিথির সামনে অন্দরসজ্জাটি হওয়া চাই ব্যতিক্রম। এই সময় বাড়ি পরিষ্কার, পর্দা, বেডকভার, পিলোকভার বদলানো একটা গুরুত্বপূর্ণ কাজ৷ সবাই তো প্রত্যেক বছর ঘরবাড়ি রং করতে পারেন না তাই ঘরে থাকা আমাদের নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রীতে নতুনত্ব এনে বা রদবদল করেই ঘরকে একটা নতুন রূপ দিতে পারি৷

পুজোয় পর্দা পাল্টান অনেকেই৷ কারণ পর্দা এমন একটা হাউজহোল্ড অ্যাকসেসরি, যা ঘরের চেহারা নিমেষে বদলে দিতে পারে৷ খুব চেনা, দীর্ঘদিন বাস করা ঘরটা এক্কেবারে নতুন হয়ে উঠতে পারে৷ পর্দা বাছাই করার আগে কয়েকটা বিষয় লক্ষ্য রাখা প্রয়োজন৷

যেমন, দেওয়ালের রং, ঘরের আসবাব এগুলো কেমন বা কী উদ্দেশ্যে ঘরটা ব্যবহৃত হচ্ছে৷ অর্থাত্‍ বেডরুম হিসেবে, ড্রয়িং রুম হিসেবে না স্টাডি৷

unnamed (4)

কারণ প্রত্যেকটাঘরের একটা আলাদা ফিল থাকে৷ বেডরুমের ক্ষেত্রে পর্দার রং খুব গাঢ় না হওয়াই ভাল৷
বেডরুমের দেওয়ালের রং যদি হালকা হয়, তবে কনট্রাস্ট কোনও প্যাস্টেল শেড-এর পর্দা বাছতে পারেন৷

আসবাব কাঠের হলে সুতির পর্দা মানাবে৷ সুতির একরঙা বা স্ট্রাইপ্স, খুব হালকা চেক্সের ওপর কিছু নিতে পারেন৷ কচি কলাপাতা, সবুজ, হালকা নীল, সাদা, লাইট বেইজ–খুব লাইট টিণ্টেড ব্রাউন এই ধরনের রংগুলো যাবে৷

এখন একসঙ্গে তিনটে রঙের পর্দা ঝোলানো ট্রেন্ড৷ দু’পাশের পর্দা হালকা, মাঝখানে গাঢ়৷ মাঝে যে কার্টেন ঝোলাবেন, তা লাইট প্রিণ্টেড হলে দু’পাশে সলিড কালার দিলে ভাল খুলবে৷

সুতি ছাড়া ফ্যান্সি কাপড়, কটন মিক্সড, স্যাটিন, ভেলভেট, রেয়ন, সিন্থেটিক পর্দাও রয়েছে৷ স্যাটিন বা ভেলভেট ফিনিশড পর্দাও খুব সুন্দর পছন্দ পুজোর সময়ের জন্য৷ তবে এই পর্দার দেখভালও কষ্টসাধ্য৷ ভেলভেট ফিনিশড পর্দা সাধারণত ফ্লোরাল ডিজাইনের হয়৷ তার মধ্যে হালকা, গাঢ় সবই পাবেন৷

ড্রয়িং রুমের ক্ষেত্রে যদি আসবাব একটু অন্যরকম হয়–যেমন, রট আয়রন বা বেতের, তা হলে প্রিণ্টেড পর্দা ভাল লাগবে৷ ড্রয়িং রুম যেহেতু সবচেয়ে বেশি ব্যবহার্য, তাই ড্রয়িং রুমের ক্ষেত্রে হালকা ম্যানেজেব্ল পর্দা লাগাতে পারেন৷

পুরো বাড়িতে একই মেটিরিয়ালের পর্দা না লাগিয়ে আলাদা কনট্রাস্ট বা ডিজাইনের লাগানোই শ্রেয়৷
অনেকের জানলায় দু’টো পর্দা থাকে৷ একটা বাইরের দিকে একটা ভিতরের দিকে৷ বাইরের দিকটা ছোট হয়৷ সেক্ষেত্রে সাদা, হালকা হলুদের ওপর প্রিণ্টেড এই ধরনের ডিজাইন ভাল লাগবে৷

unnamed (5)

ডাইনিং রুমে একটু ব্রাইট রঙের পর্দা হলে ভাল লাগবে৷
এখন সুতি ছাড়া নেট, পলিয়েস্টার মেটিরিয়ালের পর্দা খুব চলছে৷ ডিজাইনেও পাবেন অনেক কিছু৷ যেমন, চেক্সের মধ্যে পাবেন ব্রড চেক্স, স্মল চেক্স, স্ট্রাইপে পাবেন ব্রড এবং ন্যারো স্ট্রাইপ্স৷ প্রিণ্টেড পর্দার পাশাপাশি মোটিফের পর্দাও খুব ভাল৷ অ্যাপ্লিক, স্টিচ্ড পর্দাও বাড়ি সাজানোর জন্য দারুণ৷

পর্দার পাশাপাশি বেড কভার, কুশন কভার আর পিলো কভার ঘরের পুরনো চেহারাকে পাল্টে দিতে পারে, কুশন কভার দিয়ে ড্রয়িং রুমের সোফা সাজিয়ে রাখতে পারেন৷
এখন অনেকে সোফার বদলে সিঙ্গল ডিভান ধরনের কিছুও ড্রয়িং রুমের বসার জন্য রাখছেন৷

যদি কাঠের হয়, তবে একটু এথনিক মোটিফের কুশন কভার ভাল লাগবে৷ ম্যাট ব্রোকেডের কুশন কভার পুজোর দিনগুলোয় ঘরের সঙ্গে ভাল যাবে৷ রট আয়রনের সোফা সেট হলে ডিজিটাল প্রিণ্টেড, একটু কনটেম্পোরারি লুক রয়েছে ভেজিটেবল ডাই, ব্লক প্রিণ্টেড কুশন কভার খুলবে ভাল৷ ব্রাইট এবং লাইট দু’টো মিলিয়ে-মিশিয়ে কুশন কভার সাজালে ঘরের টোটাল লুক অন্যরকম হয়ে যাবে৷ একটা ফেস্টিভ মুড আসবে৷

গুজরাতি কাজ করা ঝলমলে কুশন কভারও খুব সুন্দর৷ তবে তার সঙ্গে সোফার কভার মানানসই হওয়া দরকার৷
বেডরুমেও কুশন দিয়ে সাজাতে পারেন৷

এক্ষেত্রে বেডকভার কী পছন্দ করছেন, তার ওপর৷ প্যাচওয়ার্ক বা গুজরাতি ওয়ার্ক, স্টিচ্ড এথনিক বেডকভার হলে প্লেন র-সিল্ক বা কটন সিল্ক মিক্স একরঙা ব্রাইট কনট্রাস্টে কুশন কভার বাছতে পারেন৷

unnamed (6)

বেড কভারে এখন বহু বৈচিত্র৷ শুধু নিজের ঘর অনুযায়ী বেছে নেওয়ার পালা৷ পুজোর জন্য একটু ব্রাইট কম্বিনেশন ভাল লাগবে৷ পিপলি প্রিণ্ট, ভেজিটেব্ল প্রিণ্ট, বাগ, বাগরু প্রিণ্ট, ইক্কত, কটকি প্রিণ্টের বেড কভার ঘরকে একটা এথনিক লুক দেবে৷ পিলো কভার সেক্ষেত্রে বেড কভারের সঙ্গে মানানসই নিতে হবে৷

প্রিণ্টেড চেক্স, স্ট্রাইপ বা একসঙ্গে বেড কভারে অনেক রঙের কম্বিনেশন থাকলে একরঙা পিলো কভার খুলবে ভাল৷ বেড কভার যেমনই বাছুন বেডশিট হালকা হলেই ভাল৷ হালকার ওপর ছোট ছোট প্রিণ্ট থাকলে বেডশিট দেখতে সুন্দর লাগবে৷

ঢাকা, ১২ অক্টোবর//(ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম)//আরকে