[english_date], [bangla_day], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]
সর্বশেষ সংবাদ



রাবিতে ৪৯০ কোটি টাকার বাজেট অনুমোদিত


প্রকাশিত: May 20, 2016 , 5:31 pm | বিভাগ: ক্যাম্পাস,পাবলিক ইউনিভার্সিটি,রাজশাহীর ক্যাম্পাস


RU Pic 19.05.2016

রাবি লাইভ: ২০১৬-২০১৭ অর্থবছরে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) মোট ৪৯০ কোটি ৬১ লাখ টাকার বাজেট অনুমোদিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার দিনব্যাপি অধিবেশনে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর সায়েন উদ্দিন আহমেদ বাজেট বক্তৃতায় এ প্রস্তাব উপস্থাপন করেন এবং অধিবেশনে তা পাশ হয়।

গত ২০১৫-১৬ অর্থবছরের সংশোধিত বাজেটে মোট আয়ের পরিমাণ ছিল ৪১৭ কোটি ৯৭ লাখ ৭৩ হাজার টাকা ও ব্যয়ের পরিমাণ ছিল ৩১৯ কোটি ৪৮ লাখ টাকা। চলতি বছরে অর্থাৎ ২০১৬-১৭ অর্থবছরে মোট আয়ের পরিমাণ ৫১৬ কোটি ৬১ লাখ টাকা ও ব্যয়ের পরিমাণ ৪৯০ কোটি ৬১ লাখ টাকার প্রস্তাব করা হয়।

বৃহস্পতিবার রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় সিনেটের ২২তম অধিবেশনের শুরুতে সিনেট ভবনের সামনে জাতীয় পতাকা ও বিশ্ববিদ্যালয় পতাকা উত্তোলন এবং জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে কার্যদিবস শুরু হয়। এরপর সিনেটের সভাপতি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর মুহম্মদ মিজানউদ্দিনের সভাপতিত্বে সিনেট সভার ৪টি পর্বে শোক প্রস্তাব, সিনেট সভাপতির বক্তৃতা, বিশ্ববিদ্যালয়ের বার্ষিক প্রতিবেদন উপস্থাপন, ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরের সংশোধিত বাজেট ও ২০১৬-২০১৭ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট পেশ করা হয়। এ ছাড়াও শেষ পর্বে প্রশ্নোত্তর ও উন্মুক্ত আলোচনা হয়।

অধিবেশনের সার্বিক বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার প্রফেসর এন্তাজুল হক এক প্রেস বিফ্রিং এর মাধ্যমে বলেন, “বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতি বছরের বাজেট সিনেট অধিবেশনের মাধ্যমে পাশ হওয়ার কথা। এর আগে তা হয়নি। গত বছর থেকে আমরা সিনেট অধিবেশনের মাধ্যমে বাজেট পেশ করছি।”

তিনি আরো জানান, এবারের অধিবেশনে ৪টি এজেন্ডার মধ্যে গত বছর যে সিনেট ছিল তার কার্যবিবরণী এবং তা প্রতিটি সদস্যদের কাছে পৌঁছানো, বার্ষিক প্রতিবেদন উপস্থান, বার্ষিক বাজেট পেশ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্বিক বিষয়ে প্রশ্নোত্তর পর্ব। তবে বার্ষিক বাজেট এবং প্রতিবেদন এ বছরের গুরুত্বপূর্ণ দুটি এজেন্ডা বলে জানান তিনি।

অধিবেশনে সভাপতির অভিভাষণে ভিসি প্রফেসর মুহম্মদ মিজানউদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের নিহত শিক্ষক রেজাউল করিমের নির্মম হত্যার প্রতি সমবেদনা জানিয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করেন। এরপর বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থী নিহতের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।

এ ছাড়া বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা লগ্নে যাদের অবদান অবিস্মরণীয় তাদের এবং মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড এবং অগ্রগতি তুলে ধরেন।

 

রাবি// এমআইএন, ২০ মে (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এএইচ