[english_date], [bangla_day], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]
সর্বশেষ সংবাদ



পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় : টিউশনি বনাম দামি রেস্টুরেন্টে সেলফি!


প্রকাশিত: May 29, 2016 , 1:00 pm | বিভাগ: অপিনিয়ন,মত


emon

মঈন উদ্দিন ইমন : যে সময়ে আপনি নামি দামি হোটেল রেস্টুরেন্টে গিয়ে মুরগীর হাড় চিবিয়ে চেক ইন দিয়ে যাচ্ছেন ঠিক সে সময়ে অন্য একজন ছুটে চলছে টিউশনে। মাস শেষে কিছু টাকা নিজে খরচের জন্য আর কিছু টাকা বাড়িতে দেওয়ার জন্য।

দেশের এক একটা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় এক একটা আজব কারখানা। পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হওয়ার পর আপনি দুই প্রকার স্টুডেন্ট দেখবেন। একদল হৈ হুল্লা করে সেলফি তুলে আর নামি দামি হোটেলে খেয়ে চেক ইন দেবে আর অন্য প্রকারের বেশিরভাগ স্টুডেন্ট টিউশন থেকে ক্লাশ আর ক্লাশ থেকে টিউশন করে দিন পার করবে।

এক বড় ভাইকে দেখেছি সমাজতত্ব থেকে বের হয়েছেন আজ দু’বছর হল তিনি আমানত হলে থাকতেন। একবার তার কথা শুনে নিজের চোখের পানি ধরে রাখতে কষ্ট হয়েছিল। ক্যাম্পাস থেকে সুদীর্ঘ ৪৪ কি.মি (আসা-যাওয়া) পথ মাড়িয়ে চট্টগ্রাম শহরে গিয়ে ৫ টা টিউশন করে বেতনের বড় একটা অংশ বাড়িতে দিতেন আর সামান্য কিছু অংশ রাখতেন নিজের হাত খরচের জন্য। বাড়িতে যান না প্রায় ৩ বছর। বাবার প্যারালাইসিস আর ভাই বোনের পড়ালেখার খরচের কিছু অংশ বিয়ার করে যা নিতান্ত নগন্য। তার পরও সবাই স্বপ্ন দেখেন সুন্দর ভাবে বেঁচে থাকতে ।

অনেকে হয়তো জিনিসটাকে নেগেটিভভাবে নেবেন তারপরও বলতে ইচ্ছা হচ্ছে, পৃথিবীতে আমরা মনে হয় এক অদ্ভুত জাতি খাবার টেবিলে ছবি তুলে আপলোড দিই।

তারপর দেখি রুট লেভেল থেকে উঠে আসা মানুষগুলো পরবর্তী বাংলাদেশের বড় বড় পদে অধিষ্ট হয়ে এক সময়ে হাড্ডি চিবানো মানুষগুলোকে হাড্ডির মত চিবাই।

এ যেন জম্মের আগে লিখিত এক কঠিন প্রতিশোধ।

মঈন উদ্দিন ইমন
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়

ঢাকা, ২৯ মে (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//জেএন