[english_date], [bangla_day], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]
সর্বশেষ সংবাদ



খুবিতে “যুক্তির ধারায়, যুগান্তরের অপেক্ষায়” বিতর্ক প্রতিযোগিতা


প্রকাশিত: October 31, 2016 , 4:04 pm | বিভাগ: আপডেট,খুলনার ক্যাম্পাস,পাবলিক ইউনিভার্সিটি


KU

খুবি লাইভ: যুক্তির ধারায়, যুগান্তরের অপেক্ষায় এই শ্লোগানকে সামনে রেখে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলে বিশ্ববিদ্যালয় বিতর্ক সংগঠন নৈয়ায়িকের সহযোগিতায় আন্তঃহল বিতর্ক প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্ব গতকাল বিকেল সাড়ে ৫টায় অনুষ্ঠিত হয়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের চারটি হলের আটটি দল এ বিতর্ক প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহণ করে ফাইনাল রাউন্ডে ২টি দল অংশ গ্রহণ করে। এর মধ্যে খানজাহান আলী হল দল চ্যাম্পিয়ন এবং খানবাহাদুর আহছানউল্লা দল রানার আপ হয়।

বিতর্কে প্রতিপাদ্য বিষয় ছিলো ‘অর্থনীতি যুদ্ধ সামরিক যুদ্ধের চেয়ে অধিক ভয়াবহ’। সংসদীয় পদ্ধতীতে সরকারী দলে খানজাহান আলী হল ও বিরোধী দলে খান বাহাদুর আহছানউল্লা অংশ নেয়। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান।

তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন আমাদের সামাজিক অবস্থার উন্নয়নে ও দৃষ্টিভঙ্গি বদলানোর জন্য বেশি করে বিতর্ক চর্চার প্রয়োজন। বিতর্কই একটি সমাজকে বুদ্ধিবৃত্তিক স্তরে নিয়ে যায়। আমরা যদি রাষ্ট্রকে উন্নত রাষ্ট্রে দেখতে চাই তাহলে বিশ্ববিদ্যালয় বেশি বেশি জ্ঞানর্চ্চা করতে হবে। আর এর জন্য প্রয়োজন বিতর্ক প্রতিযোগিতা। কারণ বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে বুদ্ধিবৃত্তি চর্চার স্থান।

বিতর্ক নানা যুক্তি ও উদ্ভাবনের পথ তৈরি করে। তিনি বলেন কোয়ালিটি এডুকেশন ও কোয়ালিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য সাংস্কৃতিক চর্চা একান্ত জরুরী। আমি মনে করি সমাজে বিতর্ক, যুক্তিবাদ থাকা জরুরী। যুক্তিনির্ভর সমাজ গঠনের মাধ্যমে একটি সুন্দর দেশ গড়ে তোলা সম্ভব।

তিনি খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিতর্ক সংগঠন নৈয়ায়িককে বেশি করে বিতর্ক প্রতিযোগিতা আয়োজনের আহবান জানান। পরে তিনি বিজয়ী দল ও রানার আপ দলের অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে পুরস্কার তুলে দেন। এ প্রতিযোগিতায় শ্রেষ্ঠ বিতর্কীক হন খানজাহান আলী হলের ছাত্র আরমান ইসলাম।

অনুষ্ঠানে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলের প্রভোস্ট প্রফেসর ড. মোঃ সারওয়ার জাহান এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন অ্যসিস্ট্যান্ট ছাত্রবিষয় পরিচালক মোঃ দুলাল হোসেন। অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন নৈয়ায়িকের প্রধান উপদেষ্টা এগ্রোটেকনোলজি ডিসিপ্লিনের প্রফেসর ড. মোঃ মনিরুল ইসলাম। স্বাগত বক্তব্য রাখেন নৈয়ায়িক এর সভাপতি বিএম আফসান আক্তার এ্যানি।

অনুষ্ঠানে খুবির হল প্রভোস্টবৃন্দ, সহকারী প্রভোস্টবৃন্দ, সহকারী ছাত্রবিষয়ক পরিচালকবৃন্দ, শিক্ষার্থীবৃন্দসহ বিতর্কীক ও সংগঠনের সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। পরে নৈয়ায়িককের নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়।

ঢাকা, ৩১ অক্টোবর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)// আইএইচ